প্রচ্ছদ / লীড নিউজ / দুর্বৃত্তদের গুলিতে গাইবান্ধার এমপি লিটন নিহত
home-ad-620-x-90
মঞ্জুরুল ইসলাম লিটন এমপি

দুর্বৃত্তদের গুলিতে গাইবান্ধার এমপি লিটন নিহত

অনলাইন ডেস্ক  :  গাইবান্ধা-১ (সুন্দরগঞ্জ) আসনের সংসদ সদস্য মঞ্জুরুল ইসলাম লিটন দুর্বৃত্তদের গুলিতে নিহত হয়েছেন।

শনিবার সন্ধ্যা ৬টার দিকে সুন্দরগঞ্জ উপজেলার বামনডাঙ্গা ইউনিয়নের শাহাবাজ এলাকায় নিজ বাড়িতে বৈঠক করার সময় দুর্বৃত্তদের হামলার শিকার হন তিনি। আশঙ্কাজনক অবস্থায় রংপুর মেডিকেল কলেজ (রমেক) হাসপাতালে ভর্তি করা হলে সন্ধ্যা সাড়ে ৭টার দিকে দায়িত্বরত চিকিৎসক আওয়ামী লীগের এই নেতাকে মৃত ঘোষণা করেন।

রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের চিকিৎসক বিমল সরকার সাংবাদিকদের বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, সংসদ সদস্যের বুকে গুলি লেগেছিল।

এমপি লিটনের স্ত্রী খুরশিদা জাহান স্মৃতি সাংবাদিকদের জানান, বিকেলের দিকে লিটন নেতাকর্মীদের নিয়ে বাড়ির নীচতলায় বৈঠক করছিলেন। এ সময় ৩ যুবক মোটর সাইকেল নিয়ে বাড়ির সামনে এসে থামে। একজন মোটর সাইকেল স্টার্ট দিয়ে বসে থাকে। অন্য দুইজনের মধ্যে একজন লিটনকে লক্ষ্য করে গুলি করে দ্রুত পালিয়ে যায়। ৩ যুবকই হেলমেট পরা অবস্থায় ছিল বলে জানান স্মৃতি।

এদিকে, এমপি লিটনের মৃত্যুর খবরে এলাকায় শোকের ছায়া নেমে এসেছে। ঘটনার পর পরই এমপি লিটনের বাড়ি সংলগ্ন বামনডাঙ্গা বাজারে আওয়ামী লীগ নেতাকর্মীরা বিক্ষোভ করেন এবং খুনিদের গ্রেফতারের দাবি জানান।

২০১৫ সালের ২ অক্টোবর গাইবান্ধার সুন্দরগঞ্জ উপজেলার দহবন্ধ ইউনিয়নের গোপালচরণ এলাকায় এক শিশুকে গুলি করে সারা দেশে সমালোচনার মুখে পড়েন এমপি লিটন। তিনি তার লাইসেন্স করা পিস্তল দিয়ে গোপালচরণ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের চতুর্থ শ্রেণির ছাত্র শাহাদৎ হোসেন সৌরভকে গুলি করেন।

এ ঘটনায় সৌরভের বাবা বাদী হয়ে ৩ অক্টোবর এমপি লিটনকে আসামি করে সুন্দরগঞ্জ থানায় মামলা করেন। এছাড়া, এমপি লিটনের বিরুদ্ধে ঘরবাড়ি ভাঙচুর ও লুটপাটের অভিযোগে ৬ অক্টোবর আরেকটি মামলা করেন সুন্দরগঞ্জ উপজেলার উত্তর শাহাবাজ গ্রামের হাফিজার রহমান।

ওই ঘটনায় মামলার পর থেকে আত্মগোপনে ছিলেন এমপি লিটন। পরে ওই বছরই আদালতে আত্মসমর্পণ করে কারাগারে যান। পরে জামিনে মুক্তি পান।

web-ad

আপনার মতামত দিন

আপনার ই-মেইল ঠিকানা প্রকাশ করা হবে না, এই চিহিৃত ঘরটি অবশ্যই পূরণ করতে হবে *

*